জুন ২০১৬, শেষবার দ্বিপাক্ষিক ওয়ানডে সিরিজ জিতেছিলো শ্রীলংকা। এরপর একাধিক দ্বিপাক্ষীক সিরিজে অংশ নিলেও প্রতিবারই হারের মুখ দেখতে হয়েছে শ্রীলঙ্কাকে। অবশেষে টানা আট ম্যাচ পরাজয়ের পর মঙ্গলবার স্কটল্যান্ডকে বৃষ্টি আইনে ৩৫ রানে পরাজিত করে ১-০ ব্যবধানে সিরিজ জিতলো তারা। ম্যাচ সেরা হয়েছেন নুয়ান প্রদীপ (৭-০-৩৪-৪)। দুই ম্যাচের সিরিজের প্রথম ম্যাচ বৃষ্টিতে ভেসে গিয়েছিলো।

শ্রীলঙ্কার বিশ্বকাপ দলে এদিনি দিমুথ করুনারত্বের অধীনে প্রথমে ব্যাট করে ৩২৩ রান তোলে শ্রীলঙ্কা। ২০১৫ সালে শ্রীলঙ্কা হয়ে ওয়ানডে খেলা করুনারত্বের ব্যাট থেকে ৭৭ রান আসে। যা ২০১১ সালের পর প্রথম। এছাড়া ইনিংসের শেষের দিকে লাহিরু থিরিমান্নের খেলেন অপরাজিত ৪৪ রানের ইনিংস। যা শ্রীলঙ্কাকে বড় রানের সংগ্রহ এনে দেয়।

শ্রীলংকার দেয়া ৩২৩ রান তাড়া করে শুরুটা ভালোই করেছিলো স্কটল্যান্ড। ওপেনিং জুটিতে ১০ ওভারে ৫১ রান এসেছিলো। কিন্তু কোয়েৎজার (৩৪) এবং কালাম ম্যাকলয়েড (১) দ্রুত আউট হয়ে গেলে চাপে পড়ে যায় স্কটিশরা। গত কিছুদিনে স্কটিশদের সাফল্যের বেশিরভাগ এসেছে এই দুজনের ব্যাটে ভর করেই।

যখন বৃষ্টি নামে তখন স্কটল্যান্ডের সংগ্রহ ছিল ২৭ ওভারে ১৩০/৩ রান। এরপর বৃষ্টিতে খেলা সাময়িক বন্ধ থাকে। এ সময় ডিএল ম্যাথডে ২৯ রানে পিছিয়ে ছিলো স্কটিশরা। পাশাপাশি ৩ উইকেট হারিয়ে ফেলায় রিভাইসড টার্গেট অনেক কঠিন হয়ে যায়।

বিরতির পর নতুন লক্ষ্য দাঁড়ায় ৩৪ ওভারে ২৩৫ রান। অর্থাৎ ৭ ওভারে ১০৫ রানের অসম্ভব এক লক্ষ্য সোজা হিসাবে।ওভার প্রতি ১৫ রান করে তাড়া করার চাপে। স্কটল্যান্ডের জর্জ মানসি দলের হয়ে সর্বোচ্চ ৬১ রানের ইনিংস খেলেন ৪২ বলে। ৩৩.২ ওভারে ১৯৯ রানে অল-আউট হয়ে যায় স্কটল্যান্ড।

সামনে বিশ্বকাপ, আপনি ক্রিকেট ভালোবাসেন কিন্তু নিজের প্রতিভা বিকাশের সুযোগ পাচ্ছেননা! এমন ক্রিকেট প্রিয় মানুষগুলোর জন্য বিডি স্পোর্টস নিউজ নিয়ে আসলো সুবর্ণ সুযোগ। ক্রিকেট, ফুটবল অথবা যেকোনো খেলা নিয়ে bdsportsnews.com এ লিখতে চাইলে ইমেইলের মাধ্যমে যোগাযোগ করুন contact@bdsportsnews.com এই ঠিকানায়

মন্তব্য: