বিশ্বকাপে আফগানিস্তানের বিরুদ্ধে ম্যাচে মহেন্দ্র সিংহ ধোনি ও কেদার যাদবের জুটির মন্থর ব্যাটিং নিয়ে অসন্তোষ প্রকাশ করেছিলেন ভারতীয় দলের প্রাক্তন ব্যাটিং স্তম্ভ শচীন টেন্ডুলকার। এর ফলে শচীনকেও কটুক্তি করতে ছাড়লেন না ধোনি সমর্থকরা।

হ্যাম্পশায়ার বলের বাইশ গজে আফগানদের বিরুদ্ধে মাত্র ২২৪ রান তুলেছিল ভারত ৷ চাপের মুহূর্তে পঞ্চম উইকেটে ধোনি ও কেদার যাদবের ৫৭ রানের গুরুত্বপূর্ণ পার্টনারশিপে লড়াই করার শক্তি পায়।

ইনিংসের ৪৫তম ওভারে এই জুটিতে ৫২ বল খেলে মাত্র ২৮ রান করেছিলেন ধোনি৷ ধোনির মন্থর ব্যাটিংয়ে ভারতের রানের গতি কমে যায় এজন্য ম্যাচের পর স্লগ-ওভারে স্বাভাবিক ব্যাটিং না-খেলায় ধোনির সমালোচনা করেন শচীন ৷

টেলিভিশন চ্যানেলে এক সাক্ষাৎকারে ভারতীয় ব্যাটিং সম্পর্কে তিনি বলেছিলেন, ‘আমি কিছুটা হতাশ। এটা আরও ভালো হতে পারত। আমি কেদার ও ধোনির জুটি নিয়েও সন্তুষ্ট নই। খুবই মন্থর ছিল। আমরা স্পিন বোলিংয়ের বিরুদ্ধে ৩৪ ওভার ব্যাট করে মাত্র ১১৯ রান করতে পেরেছি। এই একটা জায়গায় আমাদের স্বস্তিতে দেখা যায়নি। কোনও ইতিবাচক ইচ্ছা ছিল না’।

এরপরই ধোনি সমর্থকরা তার সঙ্গে শচীনক নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় তুলনা শুরু করেন। টুইটার সচিনের উদ্যেশে ধোনির এক ভক্ত লিখেছেন, ‘টেন্ডুলকার ব্যক্তিগত মাইলস্টোনের জন্য খেলেছেন৷ আর ধোনি দেশের জন্য ৷ সচিন নয়, ধোনিই ভারতরত্ন পাওয়ার উপযুক্ত৷’

অন্য এক ধোনির ভক্ত লিখেছেন, ‘শচীন ধোনিকে স্ট্রাইকরেটের কথা বলেছেন৷ কিন্তু উনি তো ৯০ থেকে ১০০ করতে দু’ ডজন বল খেলতেন৷’

একজনের বক্তব্য, ‘ওই লোকটাই আপনাকে বিশ্বকাপ দিয়েছিল। দলে অন্যতম সেরা ভারতীয় ক্রিকেটাররা থাকতেও আপনি নিজের কেরিয়ারে তার আগে কোনও বিশ্বকাপ জিততে পারেননি।’

হ্যাম্পশায়ার বোলের বাইশ গজে আফগানদের বিরুদ্ধে মাত্র ২২৪ রান তুলেছিল ভারত৷ চাপের মুহূর্তে পঞ্চম উইকেটে ধোনি ও কেদার যাদবের ৫৭ রানের গুরুত্বপূর্ণ পার্টনারশিপে লড়াই করার শক্তি পায়।

মন্তব্য: