চলতি বিশ্বকাপের আজকের ম্যাচে মুখোমুখি হয়েছিল নিউজিল্যান্ড-শ্রীলংকা। বাংলাদেশ সময় দুপুর ৩:৩০ মিনিটে শুরু হয় খেলাটি। টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিংয়ের পাঠায় শ্রীলংকাকে নিউজিল্যান্ড।

শ্রীলংকার জন্য আজকের দিনটি খুব একটা সুখকর ছিল না। প্রথমে ব্যাটিং করতে নেমে শ্রীলংকা ২৯.২ ওভারে মাত্র ১৩৬ রান করে গুটিয়ে যায়। তারপর নিউজিল্যান্ড ব্যাট করতে নেমে মাত্র ১৬.১ ওভারে কোনো উইকেট না হারিয়েই তাদের টার্গেট পূরণ করে ফেলে। গাপটিল ৭৩ ও মুনরো ৫৮ রানে অপরাজিত ছিলেন।

এর আগে শ্রীলংকার হয়ে ওপেনিংয়ে নামা লাহিরু থিরিমান্নে মাত্র ৪ রান করে হেনরির বলে এলবি হয়ে প্যাভিলিয়নে ফিরে যান। তারপর কুসল পেরেরার ধৈর্যশীল ব্যাটিংয়ে শ্রীলংকার কালো মেঘ আস্তে আস্তে কাটতে থাকে। তবে এই ধারা বেশিক্ষন ধরে রাখতে পারেননি তিনি। ২৪ বলে ২৯ রান করে আউট হন তিনি।

পরের বলে আবারো হেনরির আঘাতে কোন রান না করেই ফিরে যান কুসল মেন্ডিস। কুসল মেন্ডিস আউটের পর চরম বিপর্যয়ে পড়ে শ্রীলঙ্কা। কোন মতে বল ঠেকাচ্ছিলে ক্রিজে থাকা দুই ব্যাটসম্যান। এমন বিপর্যয় থেকে বের হওয়া আগেই আরেক উইকেটের পতন। লোকি ফার্গুসন বলে মাত্র ৪ রান করে এলবি হয়ে ফিরে যান ধনঞ্জয়া ডি সিলভা।

এরপর সাবেক অধিনায়ক মেথুস ৯টি বল খেললেও কোনো রান করতে পারেননি। তারপর জীবন মেন্ডসি ৪ বলে মাত্র ১ রান করে ফার্গুসনের বলে ফিরে যান। শ্রীলংকার অসহায় ক্রিকেটারদের আসা যাওয়ার পালা থাকলেও দিমুথ করুনারত্নে একাই লড়াই করে যাচ্ছিলেন নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে। তবে তার কিছু ভুল সিদ্ধান্তের কারণে বলির পাঠা হল শ্রীলংকার দুই ক্রিকেটার।

ইনিংসের প্রথম ওভারের প্রথম বলে চার হাঁকান লাহিরু থিরিমান্নে। তবে দ্বিতীয় এলবির ফাঁদে পড়েন তিনি। এলবি হলেও রিভিউ নেয়ার সুযোগ ছিল। কিন্তু অধিনায়কের কথায় রিভিউ না নিয়ে উইকেট বলি দিয়ে ফিরে যান। পরে রিপ্লেতে দেখা যায় বল স্টাম্পের বাইরে দিয়ে গেছে। রিভিউ নিলে বেঁচে যেত উইকেটটা। একই ঘটনা ঘটেছে ধনঞ্জয়া ডি সিলভার ক্ষেত্রেও।

মন্তব্য: