বিসিবি’র তত্ত্বাবধানে সাতটি দল নিয়ে হবে নভেম্বরে মাঠে গড়াচ্ছে বিপিএলের সপ্তম আসর। রবিবার একটি সংবাদ সম্মেলনে আসন্ন আসরটিতে জার্সির নকশা কেমন হবে, টুর্নামেন্টের ভেন্যু ও নিয়ম-কানুন, স্পন্সরদের জন্য নীতিমালাগুলো কেমন হবে, এইসবই একটি বিজ্ঞপ্তির মাধ্যমে জানিয়েছে বিসিবি।

যেভাবে হবে দল গঠন

প্রত্যেক দল সর্বোচ্চ ২২ জন খেলোয়াড় নিতে পারবে। তার মধ্যে ৯ জন বিদেশি ও ১৩ জন দেশি ক্রিকেটার থাকবে। একাদশে তিনজন বিদেশি ক্রিকেটার রাখতেই হবে। তবে এই সিদ্ধান্ত বিসিবি চাইলে পরিবর্তন করতে পারবে।

দল হবে সাতটি

বঙ্গবন্ধু বিপিএলে থাকছে সাতটি দল। তবে ফ্র্যাঞ্চাইজি বিসিবির হাতে থাকায় আগের নামগুলো থাকছে না। এবারের বিপিএলের দলগুলো হলো- ঢাকা, চট্টগ্রাম, খুলনা, রাজশাহী, সিলেট, রংপুর ও কুমিল্লা। নতুন স্পন্সর অনুযায়ী, নতুন নাম নিয়ে হাজির হতে পারে দলগুলো।

শুরু ৬ ডিসেম্বর, শেষ ১১ জানুয়ারি

প্লে-অফের প্রত্যেক দিনের জন্য রিজার্ভ-ডে রাখা হয়েছে। লিগ পর্বের ম্যাচ প্রত্যেক দিন দুটো করে হবে। তবে প্লে অফের ম্যাচগুলো দিনে একটা করেই হবে। ৬ ডিসেম্বর শুরু হয়ে ১১ জানুয়ারি পর্যন্ত চলবে বিপিএল। উদ্বোধনী অনুষ্ঠান হওয়ার কথা রয়েছে ৩ ডিসেম্বর।

যেভাবে হবে খেলা

সাত দল নিয়ে ডাবল লিগ রাউন্ডে প্রাথমিকভাবে ম্যাচ হবে ৪২টি। এই ম্যাচগুলোর পরে সেরা চার দল খেলবে প্লে-অফ ম্যাচ। ২১ দিন পর্যন্ত এইরকমই অব্যাহত থাকবে। তার মানে ২১ দিনেই লিগ পর্বের ৪২টি ম্যাচ শেষ হয়ে যাবে। এরপর ৩ দিনেই শেষ হবে কোয়ালিফায়ার ও এলিমিনেটর এর ৩ ম্যাচ। এলিমিনেটর শেষে দুই দিনের বিরতির পর কোয়ালিফাইং করা দুই দলের মধ্যকার ফাইনাল ম্যাচ অনুষ্ঠিত হবে।

খেলা হবে দুটি মাঠে

গত বিপিএল সিলেটে হলেও এবার আর হবে না। সপ্তম বিপিএলের নীতিমালায় বলা হয়েছে ঢাকার মিরপুর শেরে বাংলা ও চট্টগ্রামের জহুর আহমেদ চৌধুরী স্টেডিয়ামে খেলা হবে।

টিভি প্রোডাকশন

২৫শে সেপ্টেম্বর বিসিবি তার নিজস্ব ওয়েবসাইট এবং জাতীয় পত্র-পত্রিকায় নতুন টিভি প্রোডাকশন চেয়ে এক্সপ্রেশন অফ ইন্টারেস্ট(EOI) প্রকাশ করেছেন। আগামী তিন আসরের জন্য এক নতুন টিভি প্রোডাকশনের হাতে বিপিএলের দায়িত্ব দিতে চায় বিসিবি।বিসিবি মোট ১৬টি প্রযুক্তির কথা তাদের দরপত্রে মোটাদাগে উল্লেখ করেছে। বিসিবির দরপত্রে সাড়া দিয়ে আবেদন করার শেষ সময়সীমা আগামী ৬ অক্টোবর!

মন্তব্য: