প্রথমবারের মতো ভারতে পূর্ণাঙ্গ সফরে এসেই সিরিজ জয়ের আশা জাগিয়েছিল বাংলাদেশ ক্রিকেট দল। তবে প্রথম ম্যাচ বাদে দ্বিতীয় ও তৃতীয় ম্যাচে ভারতের সামনে দাঁড়াতেই পারেনি টাইগাররা। সিরিজ হেরেছে ২-১ ব্যবধানে।

তিন ম্যাচের এই সিরিজের সবগুলো ম্যাচেই বাংলাদেশের বোলাররা ছিল অনেকটাই অসহায়। মুক্ত হস্তে ভারতীয় ব্যাটসম্যানদের রান বিলিয়েছে অধিকাংশ বোলার। দুঃখজনক হলেও সত্যি, তিনটি ম্যাচের মধ্যে সম্পূর্ণ কোটার ১২ ওভার বোলিং করেছেন কেবল মাত্র একজন বোলার। আর তিনি হলে তিন বছর পর জাতীয় দলে ফেরা আল আমিন হোসেন।

সম্পূর্ণ ১২ ওভার বোলিং করতে পারেননি আর কোন বোলারই। আমিনুল ইসলাম করেছেন ১০ ওভার। রান দিয়েছেন বরাবর ৮০। উইকেট নিয়েছেন ৪টি।

সফিউল করেছেন ১০ ওভার। রান দিয়েছেন ৯১। তিনিও ৪টি উইকেট নিয়েছেন। সৌম্য সরকার ৬ ওভার বল করে রান দিয়েছেন ৪৫। নিয়েছেন দুটি উইকেট।

আফিফ হোসেন করেছেন ৫ ওভার বল করে ৮৪৪ রান দিয়েছেন। নিয়েছেন একটি উইকেট। আল আমিন হোসেন বল করেছেন ১২ ওভার। রান দিয়েছেন ৮১। নিয়েছেন একটি উইকেট।

মাহমুদউল্লাহ কেবল ১ ওভারই করেছেন। দিয়েছিলেন ১০ রান। মোসাদ্দেক করেছিলেন ২ ওভার। দিয়েছেন ২৯ রান। মুস্তাফিজ ৯.৪ ওভার বোলিং করে ছিলেন সবচেয়ে বেশি খরুচে। দিয়েছেন সবচেয়ে বেশি ৯২ রান। তার প্রাপ্তির খাতা শূন্য। প্রথম ম্যাচে ২ ওভার বোলিং করে দিয়েছেন ১৫ রান, দ্বিতীয় ম্যাচে ৩.৪ ওভার বোলিং করে দিয়েছেন ৩৫ রান আর শেষ ম্যাচে পূর্ণাঙ্গ ৪ ওভারে তিনি খরচ করেছেন ৪২ রান।

দেখে নিন বাংলাদেশ-ভারত টি-টোয়েন্টি সিরিজের তৃতীয় ম্যাচের হাইলাইটস

মন্তব্য: