তিন ম্যাচ সিরিজের আগে মঙ্গলবার শ্রীলংকা বোর্ড প্রেসিডেন্স একাদশের বিপক্ষে একমাত্র প্রস্তুতি ম্যাচে মাঠে নেমেছে বাংলাদেশ। এই ম্যাচে টসে জিতে প্রথমে ব্যাট করে শ্রীলঙ্কা নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেটে ২৮২ রানের বড় সংগ্রহ পেয়েছে। সেই রান এখন তাড়া করতে নেমে ভালো সূচনার পরও দুই ওপেনারকে হারিয়ে চাপে বাংলাদেশ।

শ্রীলঙ্কার দেওয়া ২৮৩ রানের লক্ষ্য তাড়া করতে নেমে দলকে ভালো সূচনা এনে দেন সৌম্য ও তামিম। সৌম্য ব্যক্তিগত ১৩ রানে আউট হলে ৪৫ রানে প্রথম উইকেট হারায় বাংলাদেশ।

সৌম্য হারানোর ধাক্কা কাটিয়ে ওঠার আগেই দলীয় ৫৮ রানে ফেরেন অন্য ওপেনার তামিম ইকবাল। ৪৭ বল থেকে ৬টি বাউন্ডারিতে ৩৭ রান করে লাহিরু থিরিমান্নের দ্বিতীয় শিকারে পরিণত হন তিনি।

দুই ওপেনারকে হারানোর পর তৃতীয় উইকেটে মিঠুন ও মুশফিক চাপ কাটিয়ে এগাচ্ছে বাংলাদেশ। এই জুটিতে মিঠুন ১২ ও মুশফিক ৩০ রান নিয়ে ব্যাট করছেন। দলীয় সংগ্রহ ২০ ওভার শেষে ৯৮/২।

এর আগে প্রস্তুতির শুরুটাও দুর্দান্ত হলেও শেষ পর্যন্ত তা অব্যাহত রাখতে পারেনি বাংলাদেশ। এ সুযোগ কাজে লাগিয়ে বড় সংগ্রহ গড়ে শ্রীলংকা। নির্ধারিত ৫০ ওভারে ৮ উইকেটে ২৮২ রান করে তারা।

কলম্বোর পি সারা ওভালে টসে জিতে শ্রীলঙ্কার শুরুটা ছিলো নড়বড়ে। ৩২ রান তুলতেই হারায় টপ অর্ডারের তিন ব্যাটসম্যাণ। যেখানে দুই ওপেনারকে নিরোশান ডিকভেলা ও দানুশকা গুনাথিলকাকে বিদায় রুবেল ও তাসকিন। তিন নম্বরে ব্যাট করতে নামা ওসাদা ফের্নান্দোকে মোসাদ্দেকের ক্যাচে পরিণত করেন রুবেল।

চতুর্থ উইকেটেই ভানুকা রাজাপাকশে ও শেহান জয়সুরিয়া মিলে যোগ করেন ৮২ রান। রাজাপাকশে ৩২ রান করে আউট হয়ে গেলেও, নিজের ফিফটি তুলে নেন শেহান। ৩২তম ওভারে ষষ্ঠ ব্যাটসম্যান হিসেবে আউট হওয়ার আগে করেন ৫৬ রান।

দলীয় দেড়শো পেরুনোর আগে ছয় উইকেট হারানো শ্রীলঙ্কাকে বড় স্কোরের পথে নিয়ে যায় দানুশ শানাকা। ৬৩ বলে ৮৬ রানের অপরাজিত ঝড়ো ইনিংস দলীয় সংগ্রহ ৮ উইকেটে ২৮২ রানে পৌঁছে যায়। বাংলাদেশ দলের বোলারদের মধ্যে দুটি করে উইকেট নেন রুবেল হোসেন ও সৌম্য সরকার। একটি করে উইকেট নেন তাসকিন আহমেদ ও মুস্তাফিজুর রহমান।

মন্তব্য: