আইপিএলে শেষ জয় এসেছিল সতেরো দিন আগে। রাজস্থান রয়্যালসকে তাদেরই ঘরের মাঠে হারিয়েছিল কলকাতা নাইট রাইডার্স। তারপর টানা পাঁচ ম্যাচ হেরে পয়েন্ট তালিকার ছয় নম্বরে নেমে এলেন দীনেশ কার্তিকরা। যে প্লে-অফে জায়গা পাওয়া এক সময় সহজ বলে মনে হচ্ছিল, তা এখন দুঃস্বপ্নের থেকে কম কিছু নয়।

দশ ম্যাচে আট পয়েন্ট নিয়ে ধুঁকছে কেকেআর। তা বলে যে সব আশা ফুরিয়েছে, তেমনটাও কিন্তু নয়। বাকি পড়ে থাকা চারটি কিংবা কমপক্ষে তিনটি ম্যাচও জিতলে, আইপিএলের পয়েন্ট তালিকার প্রথম চারে জায়গা পাকা করে এলিমিনেটরে খেলতেই পারেন দীনেশ কার্তিক, আন্দ্রে রাসেল, ক্রিস লিন, সুনীল নারিন, শুভমন গিলরা। তবে কাজটা যে কঠিন তা চোখ বন্ধ করেও বলা যায়।

আজ ঘরের মাঠ ইডেন গার্ডেনে স্টিভ স্মিথ, বেন স্টোকস, জোফ্রা আর্চারের রাজস্থান রয়্যালসের বিরুদ্ধে মাঠে নামছে কলকাতা নাইট রাইডার্স। অধিনায়ক পরিবর্তন করেও ধারাবাহিকতার সরণীতে ফিরতে না পেরে আইপিএলের পয়েন্ট তালিকার তলানিতে নেমে যাওয়া মরু রাজ্যের দলও, এই ম্যাচ জেতার জন্য ঝাঁপাবে বলা চলে। এরপর শক্তিশালী মুম্বাই ইন্ডিয়ান্সের বিরুদ্ধে দুটি ও কিংস ইলেভেন পাঞ্জাবের বিরুদ্ধে একটি ম্যাচ বাকি থাকবে কেকেআরের কাছে। সেগুলিকে ডু অর ডাই হিসেবেই দেখছে শাহরুখ খানের দল। বৃহস্পতিবার সকালে ইডেনে কেকেআর খেলায়াড়দের প্র্যাকটিসেও সেই মরিয়া ভাব ফুটে ওঠে।

সানরাইজার্স হায়দরাবাদের বিরুদ্ধে গত ম্যাচে চায়না-ম্যান কুলদীপ যাদবকে বাইরে রেখেই মাঠে নেমেছিল কলকাতা। কিন্তু তার পরিবর্তে খেলতে নামা কারিয়াপ্পা বোলিং ও ফিল্ডিংয়ে দীনেশ কার্তিকদের ডুবিয়েছিলেন। তাই এবার আর কোনো ভুল করতে চাইছে না সিটি অফ জয়ের দল। রাজস্থানের বিরুদ্ধে ম্যাচে কেকেআরে ফিরতে পারেন কার্লোস ব্রাথওয়েটও। এই ম্যাচের জন্য রাজস্থান তাদের প্রথম একাদশ অপরিবর্তিত রাখছে বলেই শোনা যাচ্ছে। বৃহস্পতিবার আইপিএলে দিনের একমাত্র খেলাটি শুরু হবে বাংলাদেশ সময় রাত ৮.৩০ মিনিটে।

মন্তব্য: