5.1 C
New York
Tuesday, November 29, 2022

Buy now

টি-টোয়েন্টির সব রেকর্ড ভেঙে আফগানিস্তানের বিশ্ব রেকর্ড

এ যেন রূপকথার জাদুর মতো। যেখানে দৈত্য এসে সব একনিমিষে গিলে খেয়ে ফেলে। রূপকথা তো গল্পের ভাষায় ভালো লাগে, কিন্তু বাস্তবে তার অস্তিত্ব নেই। তবু বাস্তবে এমন কিছু ঘটনা ঘটে যা রুপকথাকেও হার মানায়। জি হ্যাঁ ,এমনটাই ঘটেছে ভারতের দেহরাদুনে আয়ারল্যান্ড-আফগানিস্তানের মধ্যকার চলতি টি-২০ সিরিজের দ্বিতীয় ম্যাচে। টি – টোয়েন্টির ইতিহাসের রেকর্ড বই ওলটপালট করে দিলো আফগানিস্তান।

দেহরাদুনে আফগানিস্তানের ইনিংসে প্রথম ১০ ওভারে রান হয় ১৫৬। যার মধ্যে প্রথম চার ওভারে ৪৯, তিন ওভারে ৪৮, দুই ওভারে ৩৫, এক ওভারে ২৪ রান করে এবং বাকি দশ ওভারে আরও ১২২ রান! যা কিনা টি -টোয়েন্টির ইতিহাসে সর্বোচ্চ রান। আর এই ঘটনার মূল নায়ক বা ভিলেন যায়ই বলেন না কেন তিনি হলেন আফগানিস্তান ক্রিকেট দলের অন্যতম সদস্য আফসার জাজাই। তিনি আফগানিস্তানের হয়ে উইকেট-রক্ষকের দায়িত্ব পালন করছেন।এছাড়াও, তিনি ডানহাতে ব্যাটিংয়ে পারদর্শীতা প্রদর্শন করে আসছেন।গতবছর নিজেদের ঘরোয়া টি-টোয়েন্টি টুর্নামেন্টে ছয় বলে ছয় ছক্কা হাঁকিয়ে আলোচনায় আসা জাজাই এবার তার জাদু দেখালেন আন্তর্জাতিক অঙ্গনেও।

আয়ারল্যান্ডের বোলারদের নিয়ে রীতিমতো ছেলেখেলা করে মাত্র ৪২ বলে সেঞ্চুরি করেন তিনি।যা ছোট ফরম্যাটের আন্তর্জাতিক ম্যাচের ইতিহাসে তৃতীয় সর্বোচ্চ।

বাংলাদেশের বিপক্ষে ২০১৭ সালের অক্টোবরে মাত্র ৩৫ বলে সেঞ্চুরি তুলে নিয়ে রেকর্ড গড়েছিলেন দক্ষিণ আফ্রিকার ডেভিড মিলার। দুই মাস পর শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে ৩৫ বলেই সেঞ্চুরি তুলে মিলারের রেকর্ডে ভাগ বসিয়েছিলেন ভারতের রোহিত শর্মা। দ্রুততম সেঞ্চুরির তালিকায় চতুর্থ স্থানে রয়েছেন দক্ষিণ আফ্রিকার রিচার্ড লেভি। নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ইনিংসটি খেলেছিলেন ২০১২ সালে।এদিকে ক্যারিয়ারের পঞ্চম টি-টোয়েন্টিতে নিজের প্রথম সেঞ্চুরিটি তুলে নিয়ে জাজাই ছিলেন অপরাজিত।

১৬টি ছয় মেরে এক ইনিংসে সবচেয়ে বেশি ছক্কার রেকর্ডও গড়েছেন আফগান তরুণ। এর আগে ২০১৩ সালে অ্যারন ফিঞ্চ ১০টি ছক্কার একটি ইনিংস খেলেছিলেন ইংল্যান্ডের বিপক্ষে।তবে ফিঞ্চের অন্য আরেকটি রেকর্ড ভাঙতে পারেননি জাজাই। তা হলো আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে ব্যক্তিগত সর্বোচ্চ রানের ইনিংসের রেকর্ড। গতবছর জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে ১৪ ছক্কার মারে খেলা ইনিংসটিতে ১৭২ রান করেছিলেন ফিঞ্চ। মাত্র ১০ রানের জন্য সে রেকর্ড নিজের করে নিতে পারেননি জাজাই।

তাছাড়াও ব্যাট হাতে দুর্দান্ত সূচনা করেন হজরতউল্লাহ জাজাই ও উসমান গনি। আইরিশ বোলারদের চার-ছক্কার বন্যায় ভাসিয়ে দেন দুই ওপেনার। ২৩৬ রানে ভাঙে এই জুটি। যা আন্তর্জাতিক টো-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ জুটি।

জাজাইয়ের এতসব কীর্তির দিনে বিশ্বরেকর্ড গড়েছে আফগানিস্তানও। নিজেদের নির্ধারিত ২০ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে ২৭৮ রান করেছে আফগানরা। যা শুধু আন্তর্জাতিক নয়, সবধরণের টি-টোয়েন্টি ক্রিকেট মিলিয়ে সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহের বিশ্বরেকর্ড।

টি-টোয়েন্টি ক্রিকেটে সর্বোচ্চ দলীয় সংগ্রহ:

১. আফগানিস্তান – ২৭৮/৩ বনাম আয়ারল্যান্ড, ২০১৯

২. অস্ট্রেলিয়া – ২৬৩/৩ বনাম শ্রীলঙ্কা, ২০১৬

৩. রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালুরু – ২৬৩/৫ বনাম পুনে ওয়ারিয়র্স, ২০১৩

৪. নর্থ ওয়েস্ট – ২৬২/৪ বনাম লিম্পোপো, ২০১৮

৫. শ্রীলঙ্কা – ২৬০/৬ বনাম কেনিয়া, ২০০৭

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে এক ইনিংসে সর্বোচ্চ ব্যক্তিগত সংগ্রহ:

১. অ্যারন ফিঞ্চ – ১৭২ বনাম জিম্বাবুয়ে, ২০১৮

২. হযরতউল্লাহ জাজাই – ১৬২* বনাম আয়ারল্যান্ড, ২০১৯

৩. অ্যারন ফিঞ্চ – ১৫৬ বনাম ইংল্যান্ড, ২০১৩

৪. গ্লেন ম্যাক্সওয়েল – ১৪৫* বনাম শ্রীলঙ্কা ২০১৬

৫. এভিন লুইস – ১২৫* বনাম ভারত ২০১৭

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে এক ইনিংসে সর্বোচ্চ ছক্কা :

১. হযরতউল্লাহ জাজাই – ১৬ ছক্কা বনাম আয়ারল্যান্ড, ২০১৯

২. অ্যারন ফিঞ্চ – ১৪ ছক্কা বনাম ইংল্যান্ড, ২০১৩

৩. রিচার্ড লেভি – ১৩ ছক্কা বনাম নিউজিল্যান্ড, ২০১২

৪. এভিন লুইস – ১২ ছক্কা বনাম ভারত, ২০১৭

৫. ক্রিস গেইল – ১১ ছক্কা বনাম ইংল্যান্ড, ২০১৬

আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টিতে সর্বোচ্চ রানের জুটি:

১. হযরতুল্লাহ জাজাই ও উসমান গনি – ২৩৬ রান বনাম আয়ারল্যান্ড, ২০১৯

২. অ্যারন ফিঞ্চ ও ডি’আরকি শর্ট – ২২৩ বনাম জিম্বাবুয়ে, ২০১৮

৩. মার্টিন গাপটিল ও কেন উইলিয়ামসন – ১৭১* বনাম পাকিস্তান, ২০১৬

৪. গ্রায়েম স্মিথ ও লুটস বোসম্যান – ১৭০ বনাম ইংল্যান্ড ২০০৯

৫. মাহেলা জয়াবর্ধনে ও কুমার সাঙ্গাকারা – ১৬৬ বনাম ওয়েস্ট ইন্ডিজ, ২০১০

Related Articles

Leave a reply

Please enter your comment!
Please enter your name here

Stay Connected

0FansLike
3,582FollowersFollow
0SubscribersSubscribe
- Advertisement -spot_img

Latest Articles