বিশ্বকাপ ফাইনালের সুপার ওভারে নিউজিল্যান্ডের অলরাউন্ডার জিমি নিশাম যখন ছক্কা মারেন, ঠিক সেই মুহূর্তেই মৃত্যু হয় তার ছোটবেলার কোচ ও হাইস্কুলের শিক্ষক ডেভিড গর্ডনের। গর্ডনের মেয়ে লোনি সংবাদ মাধ্যমকে এই খবর জানিয়েছেন।

সুপার ওভারে প্রথম পাঁচটি বল থেকে ১৩ রান তোলেন জিমি নিশাম। যেখানে দ্বিতীয় বল থেকে ছক্কা হাঁকান তিনি। সেই ছক্কার পরই শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন হাসপাতালে শয্যাশায়ী অবস্থায় ভর্তি থাকা এই কোচ।

সংবাদমাধ্যমে লোনি জানিয়েছেন, ‘বাবা অসুস্থ হয়ে হাসপাতালে ভর্তি ছিলেন। বিশ্বকাপ ফাইনালের শেষ ওভার, সুপার ওভারের সময় এক নার্স এসে জানান, বাবার নিঃশ্বাস বদলে যাচ্ছে। জিমি নিশম যখন ছক্কা মারে, সেই সময়ই বাবা শেষ নিঃশ্বাস ত্যাগ করেন। বাবার রসবোধ ছিল। তিনি যেভাবে মৃত্যু চাইতেন সেভাবেই হল।’

এদিকে কোচের এই খবর পেয়ে টুইট করে প্রয়াত কোচকে শ্রদ্ধা জানিয়েছেন নিশাম। তিনি বলেন, ‘আমার হাইস্কুল টিচার, কোচ এবং একজন বন্ধু ছিলেন ডেভ গর্ডন। ক্রিকেট খেলার প্রতি আপনার ভালোবাসা অতুলনীয়। যারা আপনার অধীনে খেলতে পেরেছি, তারা বেশ সৌভাগ্যবানই আমার মতে। আশা করি আপনি গর্ব নিয়েই বিদায় নিতে পেরেছেন। সবকিছুর জন্য ধন্যবাদ। পরকালে শান্তিতে থাকুন।’

মন্তব্য: