মেসির পর এবার লম্বা সময় পর জাতীয় দলের স্কোয়াডে ফিরলেন পর্তুগাল তারকা ক্রিষ্টিয়ানো রোনালদো। ইউরো কাপের যোগ্যতা অর্জন পর্বে তাকে রেখেই দল ঘোষণা করেছে পর্তুগাল কোচ ফার্নান্দো স্যান্টোস।

গতবছরের জুলাইতে উরুগুয়ের কাছে ১-২ গোলে বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে যাওয়ার পর আর পর্তুগাল জাতীয় দলের হয়ে মাঠে নামেননি ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো। অবশেষে প্রায় ৮ মাসের বেশি সময় পর পর্তুগালের হয়ে মাঠে নামবেন ৩৪ বছর বয়সী তারকা ফুটবলার রোনালদো।

দেশের জার্সি গায়ে ৮৫টি গোল করা স্ট্রাইকারকে ছাড়াই উয়েফা নেশনস লিগের ফাইনালসের যোগ্যতাও অর্জন করে পর্তুগাল। কিন্তু ২০২০ ইউরো কোয়ালিফাইং রাউন্ডে ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের স্কোয়াডে রোনালদোকে না রাখার সাহস দেখাতে পারলেন না পর্তুগিজ কোচ।

ইউরো কোয়ালিফায়ারে ঘরের মাঠে আগামী ২৩ মার্চ ইউক্রেন এবং ২৬ মার্চ সার্বিয়ার মুখোমুখি হবে পর্তুগাল। ওই দুটি ম্যাচের জন্য ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের স্কোয়াডে কামব্যাক করলেন সিআরসেভেন। কোয়ালিফায়ারের দু’টি ম্যাচই অনুষ্ঠিত হবে লিসবনে।

দুই ম্যাচের জন্য পর্তুগাল স্কোয়াড

গোলরক্ষক: রুই প্যাট্রিসিও, বেতো, হোসে সা।

ডিফেন্ডার: হুয়াও ক্যানসেলো, নেলসন সেমেদো, হোসে ফন্তে, পেপে, রুবেন ডিয়াজ, রাফায়েল গুইরেরো, মারিও রুই।

মিডফিল্ডার: দানিলো পেরেইরা, রুবেন নেভেস, উইলিয়ামস কারভালহো, ব্রুনো ফার্নান্দেস, হুয়াও মারিয়াও, হুয়া মৌতিনহো, পিজ্জি।

ফরোয়ার্ড: বার্নার্দো সিলভা, হুয়াও ফেলিক্স, গন্সালো গুইদেস, রাফা সিলভা, আন্দ্রে সিলভা, ক্রিশ্চিয়ানো রোনালদো, ডিয়োগো জোতা এবং ডিয়েগো সৌসা।

মন্তব্য: