আসন্ন বিশ্বকাপকে সামনে রেখে আজ বাংলাদেশ দলের অফিসিয়াল জার্সি উন্মোচন করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোড (বিসিবি)। তবে জার্সি উন্মোচনের পরই জার্সি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়ায় চলছে সমালোচনার ঝড়। প্রশ্ন উঠছে বিসিবির এই জার্সি কি ইংল্যান্ড বিশ্বকাপে বাংলাদেশকে প্রতিনিধিত্ব করা নিয়ে। কারণ বাংলাদেশ দলের জার্সিতে বাংলাদেশকে খুঁজে পাওয়া যাচ্ছে না।

বাংলাদেশ ক্রিকেট দলের জার্সিটা সব সময়ই বাংলাদেশের জাতীয় পতাকার রং লাল ও সবুজের আদলে তৈরি করা হয়। সেই ধারাবাহিকতা ছিল যথাক্রমে ১৯৯৯, ২০০৩, ২০০৭, ২০১১ ও ২০১৫ সালের বিশ্বকাপে। কিন্তু ২০১৯ সালে বাংলাদেশ দলের জার্সিটা যেন কোনো ভাবেই বাংলাদেশের পতাকার সঙ্গে মিলানো যাচ্ছে না। কারণ প্রকাশিত জার্সির একটা লাল আর অন্যটা সবুজ।

২০১৯ বাংলাদেশ বিশ্বকাপের জার্সি দেখে ফেসবুকে জাফর আহমেদ নামের একজন ক্রিকেটপ্রেমি মন্তব্য করেন-‘দেশে কি ডিজাইনারের এতো অভাব পড়েছে? সবুজে লাল নাই, আবার লালে সবুজ নাই। সবুজ দিচ্ছে তাও পাকিস্তানি আর আইরিশ (আয়ারল্যান্ড) লাগে। আবার লালটা লাগে কানাডা নয়তো জিম্বাবুয়ে..!’

২০১১ ও ২০১৫ সালের ক্রিকেট বিশ্বকাপে বাংলাদেশের জার্সি প্রশংসা কুড়িয়েছিল। সেবার একটি প্রতিযোগীতার মাধ্যমে জার্সি ডিজাইন নির্বাচন করা হয়েছিল। কিন্তু এবারের বিশ্বকাপের জার্সি নির্বাচনের ক্ষেত্রে সেরকম কোনো প্রতিযোগীতার আয়োজন করা হয়নি। জার্সি প্রস্তুতকারী প্রতিষ্ঠান স্পোর্টস অ্যান্ড স্পোর্টজ ডিজাইন থেকে শুরু করে সব দিকটা দেখেছে। তবে দিনশেষে তাদের জার্স ক্রিকটে প্রেমী বাঙালীর মন জয় করেত পারেনি।

জানা গেছে যে কোম্পানিকে এবারের বিশ্বকাপের জার্সির ডিজাইন দিতে বলা হয়েছিলো তারা সবমিলিয়ে ২০ ধরনের ডিজাইন বিসিবির টেবিলে হাজির করে। সেই ডিজাইনের ভিড় থেকে বিসিবি যে দুটি রংয়ের জার্সি বেছে নিয়েছে। তবে বিসিবির পছন্দ প্রশংসার চেয়ে সমালোচনাই কুড়ালো বেশি।

মন্তব্য: