এশিয়ার প্রথম অধিনায়ক হিসেবে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে টেস্ট সিরিজ জিতে ইতিহাস গড়লেন বিরাট কোহলি। কারণ ১৯৪৭ এ দেশ ভাগের পর থেকে এখন পর্যন্ত এশিয়ার একাধিক অধিনায়ক অস্ট্রেলিয়া সফরে গেলেও কখনোই টেস্ট সিরিজ জয়ের স্বাদ পায়নি। তবে স্মিথ-ওয়ার্নারহীন অস্ট্রেলিয়ার বিরুদ্ধে এই সিরিজ জয় নিয়ে নিন্দুকেরা নানা কথা বলতেই পারেন। কিন্তু ইতিহাস তো সেকথা বলবে না, সে কথা মনেও রাখবেনা। রেকর্ড বইয়ে যে কথাটি লেখা থাকবে তা হলো অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে এশিয়ার প্রথম অধিনায়ক হিসেবে টেস্ট সিরিজ জয়ের কীর্তিটি হলো কোহলির।

বিরাট কোহলি নিজেও অস্ট্রেলিয়ায় সিরিজ জয়কে ক্যারিয়ারের সেরা প্রাপ্তি বলছেন। দক্ষিণ আফ্রিকা, ইংল্যান্ডে সিরিজ হারের পর অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে এই সিরিজ জয়কে ক্যারিয়ারের সবার ওপরে রাখছেন অধিনায়ক কোহলি। এমনকী ২০১১ সালের বিশ্বকাপ জয়ের ওপরেও। তিনি বলেন, “এখন পর্যন্ত আমার সেরা অ্যাচিভমেন্ট। সবার ওপরেই এটা থাকবে। যখন আমরা বিশ্বকাপ জিতেছিলাম (২০১১) তখন আমি ছোট ছিলাম। দেখেছিলাম সবাই কী রকম আবেগপ্রবণ হয়ে পড়েছিল। এই সিরিজ জয় দল হিসেবে আমাদের আলাদা পরিচিতি দেবে। কারণ আমরা দল হিসেবে যা কীর্তি করেছি তার জন্য আমরা গর্বিত।” ৭১ বছরের ক্রিকেট ইতিহাসে ১১বার অস্ট্রেলিয়া সফরে এই জয় এল অবশেষে।

প্রথম ভারতীয় দল হিসেবে অস্ট্রেলিয়ার মাটিতে কোহলিদের সিরিজ জয় ব্যাখ্যায় পূজারাদের হেড কোচ বলেন, ‘এই জয় আমাকে চরম তৃপ্তি দিয়েছে। আমার কাছে অস্ট্রেলিয়ায় সিরিজ জয় ৮৩-র বিশ্বজয় কিংবা ৮৫-র ওয়ার্ল্ড চ্যাম্পিয়নশিপের সমান। কোন কোন ক্ষেত্রে অস্ট্রেলিয়ায় এই জয়কে আমি এগিয়েও রাখব। কারণ টেস্ট ক্রিকেট সবচেয়ে কঠিন ফরম্যাট।’

পরিসংখ্যান বলছে, বিরাট কোহালির নেতৃত্বে এটা ভারতের চতুর্থ অ্যাওয়ে টেস্ট সিরিজ জয়। সৌরভ গঙ্গোপাধ্যায়ের নেতৃত্বেও ভারত চারবার অ্যাওয়ে টেস্ট সিরিজ জিতেছে। সৌরভকে স্পর্শ করলেন কোহালি। বিদেশে অধিনায়ক হিসেবে সবচেয়ে বেশি টেস্ট জেতার সংখ্যায় অবশ্য সৌরভকে টপকে গেলেন কোহালি। সৌরভের ১১ অ্যাওয়ে টেস্ট জেতা ছিল অধিনায়ক হিসেবে। কোহালি সেখানে জিতে ফেললেন এক ডজন টেস্ট। সৌরভের থেকে কম টেস্টে এই রেকর্ড করলেন কোহালি। সৌরভ বিদেশে ২৮ টেস্টে নেতৃত্ব দিয়ে জিতেছিলেন ১১টিতে অন্যদিকে কোহালি বিদেশের মাটিতে মাত্র ২৪ টেস্টে নেতৃত্ব দিয়েছেন আর তাতেই জিতে নিয়েছেন ১২টি টেস্ট।

মন্তব্য: