আগামী ৩০ মে ইংল্যান্ডে পর্দা উঠতে যাচ্ছে বিশ্বকাপের দ্বাদশ আসরের। এই আসরে প্রথমবারের মতো অংশ নিতে যাচ্ছে আইসিসিরি নব্য সদস্য আফগানিস্তান ক্রিকেট দল। এই দলটি তুলনামূলক ব্যালেন্সড হলেও আহামরী শক্তিশালী নয়।

তবে দলটিতে রয়েছে বেশ কিছু প্রতিভাবান মুখ। যাদেরই একজন রশিদ খান। যিনি বর্তমানে আইপিএলে ব্যস্ত সময় কাটাচ্ছেন। সেখানে সানরাইজার্স হায়দরাবাদে নিয়মিত খেলার পাশাপাশি প্রস্তুতি সারছেন বিশ্বকাপের।

এদিকে দ্বাদশ ওয়ানডে বিশ্বকাপ শুরু হতে খুব বেশি দেরি নেই। তাই ধারণা করা হচ্ছে শিগগিরই দলের সঙ্গে যোগ দিবেন রশিদ খান। তবে তার ধ্যান ধারণা এবং কল্পনা বিশ্বকাপ ঘিরে। সেটা তার কথা-বার্তায় স্পষ্ট।

এবার তেমনই মিডিয়াকে বিশ্বকাপ নিয়ে নিজের আগ্রহ ও নিজেদের শক্তিমত্তা নিয়ে কথা বলেছেন রশিদ। এক বক্তব্যে রশিদ বলেছেন, তিনি ১৯৯২ সালে বিশ্বকাপে পাকিস্তানের খেলা দেখে নিজেদের জয়ের ব্যাপারে বেশ আশাবাদী।

সংবাদমাধ্যমকে রশিদ বলেন, ‘১৯৯২ সালে পাকিস্তানের অধিনায়ক ইমরান খানের হাতে বিশ্বকাপের ট্রপি দেখে বিশ্বকাপ খেলার ইচ্ছা জাগে। আমি সেখান থেকে অনুপ্রাণিত।’

কিন্তু মজার ব্যাপার হল, ক্রিকবাজ-ক্রিকইনফোসহ উইকিপিডিয়ার সূত্র, রশিদ খানের জন্ম ১৯৯৮ সালে। সে হিসাবে তার বয়স কেবল ২০। কিন্তু তিনি কিভাবে ১৯৯২ বিশ্বকাপ দেখেন এটাই সবার প্রশ্ন। যা নিয়ে ফেসবুকে ট্রলড হচ্ছেন রশিদ খান।

মন্তব্য: