১৯৯৬-র ৪ অক্টোবর। ৩৭ বলে তিন অঙ্কের ঘরে পৌঁছে, একদিনের ক্রিকেটে দ্রুততম শতরানের রেকর্ড গড়েছিলেন। শাহীদ আফ্রিদীর ব্যাটে সেই ঝড় এখনও লোকের মুখে মুখে ফেরে। কিন্তু কার ব্যাট দিয়ে সেদিন এই পাক ক্রিকেটার ঝড় তুলেছিলেন ভারতের ক্রিকেট ইশ্বর শচীন টেন্ডুলকারের ব্যাট থেকে। এমনই তথ্য দিয়েছেন সাম্প্রতিক সময়ে তাঁর প্রকাশিত আত্মজীবনী ‘‌গেম চেঞ্জার’‌ বইটিতে।

আফিদ্রী লিখেছেন, ঘটনার বর্ণনায় আফ্রিদি তার বইতে লিখেছেন- ওই ব্যাটটি ছিল ভারতীয় লিটল মাস্টার শচীন টেন্ডুলকারের ভীষণ পছন্দের। সেই সময় পাকিস্তানের শিয়ালকোট থেকেই একই রকম আরেকটি ব্যাট বানিয়ে কিংবদন্তি পেসার ওয়াকার ইউনুসকে ব্যাটটি দিয়েছিলেন শচীন। ওয়াকার শিয়ালকোটে ব্যাটটি নিয়েছিলেন ঠিকই কিন্তু তার আগেই শহীদ আফ্রিদিকে দিয়ে বলেছিলেন- যাও এটি দিয়ে চার-ছক্কা মারো।

অর্থাত্‍ সেদিন শচীনের ব্যাট দিয়েই আমি সেঞ্চুরি হাঁকিয়েছিলাম।সেদিন তিনি ১০২ রান করেছিলেন। ইনিংসে ছিল ১১টা ছয়, ৬টা চার। অথচ ওই ম্যাচটা ছিল একদিনের ক্রিকেটে তাঁর দ্বিতীয় ম্যাচ। ’

কী ভেবেছিলেন ম্যাচের আগে?‌ আফ্রিদি সে কথাও লিখেছেন বইয়ে, ‘‌আগের রাতে জানেন স্বপ্ন দেখেছিলাম, জয়সূর্য, মুরলিথরন, ধর্মসেনার বলে ছয় মারছি। যেমন-তেমন ছয় নয়, সীমানো ছাড়ানো বিশাল ছয়। আমার ঘরেই ছিল শাদাব কবির। ঘুম থেকে উঠে কথাটা ওকে বলি। শাদাব আমাকে পাল্টা বলেছিল, ‘‌ভাই মনে মনে দোয়া করো। হলে হতেও পারে।’‌ দেখুন মিলে গিয়েছিল কথাটা।’‌

মন্তব্য: