আগামীকাল ৩০ এপ্রিল বঙ্গমাতা অনূর্ধ্ব-১৯ আন্তর্জাতিক গোল্ডকাপের সেমিফাইনালে লাওসের মুখোমুখি হবে বাংলাদেশ দল। কিন্তু এই ম্যাচে দলের দুই নির্ভরযোগ্য স্ট্রাইকার কৃষ্ণা রানী সরকার ও সিরাত জাহান স্বপ্নাকে ঘিরে সৃষ্টি হয়েছে অনিশ্চয়তা। রোববার (২৮ এপ্রিল) বাফুফে ভবনে সংবাদ সম্মেলনে এ তথ্য জানান দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন।

রোববার মতিঝিলে বাফুফে ভবনে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব–১৯ নারী দলের কোচ গোলাম রব্বানী ছোটন বলেন, গ্রুপ পর্বের শেষ ম্যাচে স্বপ্না শট নেয়ার সময় কিরগিজস্তানের গোলরক্ষক তার পায়ে আঘাত করেন। এ সময় স্বপ্নার গায়ের ওপর পড়ে গেলে ডান হাঁটুতে আঘাত পান স্বপ্না।

অন্যদিকে প্রতিপক্ষের ডিফেন্ডারের ট্যাকলে আঘাত পান কৃষ্ণা। কৃষ্ণার চেয়ে স্বপ্নার চোট একটু বেশি গুরুতর। তাদের দুজনকে সেমিতে পাওয়ার সম্ভাবনা খুবই কম।

প্রথম পর্বে গ্রুপ চ্যাম্পিয়ন হওয়ার পথে মাত্র চার গোল পেয়েছে লাল-সবুজের প্রতিনিধিরা। এর মধ্যে কৃষ্ণা একাই করেছেন দুটি। আর একটি করে গোল করেছেন স্বপ্না ও সানজিদা। অর্থ্যাৎ গোল করা দুই তারকাকে শেষ চারের লড়াইয়ে নাও পেতে পারে বাংলাদেশ।

তবে কৃষ্ণা ও স্বপ্নার ইনজুরি সত্বেও আশাবাদী কোচ। স্বাগতিক কোচ বলেন, বদলি হিসেবে নেমে মারজিয়া-তহুরারা দারুণ খেলেছে। আমাদের রিজার্ভ বেঞ্চ শক্তিশালী। আশা করি কোনো সমস্যা হবে না।

মন্তব্য: