বৃহস্পতিবার দক্ষিণ কাশ্মীরের পুলওয়ামায় পাকিস্তানি জঙ্গি সংগঠন জইশ-ই মোহম্মদের হামলায় শহিদ হয়েছেন ভারতের ৪০ জন সিআরপিএফ সৈনিক/জওয়ান৷ শহীদ জাওয়ানদের জন্য ভারত জুড়ে শোকের আবহ। হামলার ঘটনায় শোকস্তব্ধ ভারতীয় ক্রিকেটাররাও।

ভারতীয় দলের অধিনায়ক বিরাট কোহলি নিহতদের পরিবারবর্গের প্রতি সমবেদনা জানিয়েছেন।ট্যুইটারে তিনি লিখেছেন, পুলওয়ামায় হামলার খবরে আমি মর্মাহত। শহীদদের পরিবারের লোকজনদের প্রতি আমার আন্তরিক সমবেদনা জানাচ্ছি। আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।

কোহালির মতো ভারতীয় ক্রিকেটের প্রাক্তন তারকা শচীন টেন্ডুলকারও তীব্র ভাষায় ওই ঘটনার নিন্দা করেছেন। তিনি টুইট করেছেন, ‘‘কাপুরুষোচিত, বর্বরোচিত এবং অর্থহীন এই আক্রমণ। যে জওয়ানরা প্রাণ হারিয়েছেন, তাঁদের পরিবারের প্রতি গভীর সমবেদনা জানাই। যে সমস্ত বীর জওয়ান হাসপাতালে রয়েছেন, তাঁরা দ্রুত সুস্থ হয়ে উঠেন সেই প্রার্থনা করছি।’’

কোহলি, টেন্ডুলকার ছাড়াও বীরেন্দ্র শেওয়াগ, রোহিত শর্মা, ভিভিএস লক্ষ্মণ, শিখর ধাওয়ান, সুরেশ রায়না ও মহম্মদ কাইফরাও ট্যুইটের মাধ্যমে তাঁদের শোক ও মর্মবেদনার কথা জানান।
শেওয়াগের ট্যুইট, জম্মু ও কাশ্মীরে আমাদের সিআরপিফের ওপর কাপুরুষোচিত হামলার ঘটনায় ব্যথিত। এই যন্ত্রণা বর্ণনার কোনও ভাষাই নেই। আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।

রোহিত শর্মার টুইট, ‘‘একই সঙ্গে মর্মাহত এবং আতঙ্কগ্রস্ত হয়ে পড়েছি। যে দিনে আমরা সকলে প্রেমের বার্তা দিচ্ছিলাম, সেই সময়ে কিছু কাপুরুষ ছড়িয়ে দিয়ে গেল ঘৃণা। নিহত জওয়ানদের পরিবারের প্রতি সমবেদনা জানাচ্ছি। গোটা দেশ তাঁদের সঙ্গেই রয়েছে।’’

শিখর ধওয়ন টুইট করেছেন, ‘‘আমাদের ৪০ জন জওয়ান সন্ত্রাসবাদী হামলায় প্রাণ হারালেন। খবরটা পেয়ে খুব কষ্ট হচ্ছে। বিশ্বাস করি, আমাদের সেনাবাহিনী প্রয়াত জওয়ানদের এ ভাবে প্রাণ হারানোর যোগ্য জবাব দেবে।’’

লক্ষ্মণের ট্যুইট, পুলওয়ামায় আমাদের নির্ভীক সিআরপিএফ জওয়ানদের ওপর হামলার ঘটনায় দুঃখিত ও ব্যথিত। হামলায় আহতদের দ্রুত আরোগ্য কামনা করছি।

মন্তব্য: