আইপিএল খেলতে সাকিব এখন ভারতে। আবার সামনেই বিশ্বকাপ। বিসিসিবি থেকে অনুমতিপত্র নিয়ে আইপিএল খেলতে গেলেও একটি ম্যাচ বাদে বাকি সবকয়টা ম্যাচে এখন ডাগআউট বসে খেলা দেখতে হচ্ছে।

কারণ হিসেবে সাকিব যেই দলের হয়ে আইপিএল খেলছে সেখানে প্রথম ম্যাচে তার বোলিংয়ে রানের পরিমান অনেক বেশি দিয়ে ফেলেছিলো। ফলাফলে প্রথম ম্যাচটি হারতে হয় সাকিবের সানরাইজার্স হায়দরাবাদের।

এসব কিছু নিয়ে ভাবলে দেখা যায় সাকিবকে যে কারণে আইপিএল খেলার অনুমতি দিয়েছিলো বিসিবি, তার কোনো কাজেই আসে না। মানে বিশ্বকাপের আগে সাকিবকে ঝালিয়ে নেয়ার জন্য আইপিএলের আসরে যাওয়ার জন্য অনুমতিপত্রটি দেয়া হয়।

আর তাই এসব কিছু বিবেচনা করে বিশ্বকাপের আগে সাকিবের টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে খেলাটাকে ভালোভাবে দেখছেন না বিসিবি সভাপতি। তার ওপরে সানরাইজার্সের ফরমেশনের কারণে একাদশে সুযোগ পাচ্ছেন না এই ক্রিকেটার।

ম্যাচ খেলতে না পারার কারণে সাকিবকে দেশে ফিরিয়ে আনা হবে কিনা জানতে চাইলে পাপন বলেন, বিশ্বকাপের আগে সাবিককে টি-টোয়েন্টি ফরম্যাটে খেলতে দিতে রাজি ছিল না বিসিবি। শেষ পর্যন্ত ম্যাচ প্র্যাকটিসের কথা বিবেচনা করেই ওকে আইপিএল-এ খেলার ছাড়পত্র দেয়া হয়। ও যদি এখন ম্যাচই খেলতে না পারে তবে সেখানে রেখে লাভ কী? জাতীয় দলের ক্যাম্প শুরু হলে সাকিবকে দেশে ফিরিয়ে আনার কথা বলেন বিসিবি সভাপতি।

মন্তব্য: