বাংলাদেশ স্কোয়াডে বিশ্বকাপের জার্সি গায়ে দেয়া ফটোসেশনে সহ অধিনায়ক সাকিব আল হাসানের অনুপস্থিতি নিয়ে চলছে নানারকম আলোচনা সমালোচনা। সেই সাথে বিসিবি সভাপতি পাপনের ক্ষোভ প্রকাশ অনেকটা আগুনে ঘি ঢালার মতোই হয়েছে।

তবে এই নিয়ে সাকিব দায়িত্বপ্রাপ্তদের কাছে ক্ষমা চেয়েছেন। তারপরেও তাকে নিয়ে বিতর্ক শেষ না হওয়ায় গতকাল মঙ্গলবার সাকিব পত্নী উম্মে শিশির তার ফেইসবুক ওয়ালে একটি পোস্ট করেন।

দলের ফটোসেশনে সাকিবের না আসা নিয়ে যে বিতর্ক হয়েছে, সেটির পেছনে সাংবাদিকদের দায় দেখেছেন সাকিবের স্ত্রী শিশির। এছাড়া তার স্বামী জার্সি উম্মোচন অনুষ্ঠানে না আসা নিয়েও যে ব্যাখ্যা দিয়েছেন তা পর্যাপ্ত যুক্তিসঙ্গত নয়। তবে বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান ব্যাখ্যা দিয়েছেন অনুষ্ঠানে সাকিব আল হাসান কেন উপস্থিত ছিলেন না।

বিসিবির বস জানালেন, সাকিব নাকি বিসিবির বার্তা পড়েই দেখেনি, ‘‘রাতে সে (সাকিব) আমার বাসায় এসেছিল। বলল, ‘মেসেজ পেয়েছি কিন্তু পড়িনি। জানতাম না যে ওখানে ফটোসেশন আছে!’ তবে আমি যেটা জেনেছি, ওকে জানানো হয়েছে। ও বলছে না যে জানানো হয়নি। বলছে, ‘যে চিঠিটা পাঠানো হয়েছিল, সেটি সে পড়ে দেখেনি।’ হতেও পারে, সে পড়ে দেখেনি।’’

কিন্তু ফেসবুকে সাকিবের স্ত্রী শিশির যে বলছেন আরেক কথা, ‘সে এখানে যেতে পারেনি কিন্তু সেটা ইচ্ছে করে নয়। কারণ তাকে যে মেসেজ পাঠানো হয়েছিল সেটা ভুল বুঝেছে সে। এর পর সে দায়িত্বপ্রাপ্তদের কাছে ক্ষমা চেয়েছে।’

শিশির যে আক্রমণাত্মক ভাষায় সাংবাদিকদের সমালোচনা করেছেন, সেটি নিয়ে কিছু বলতে চাইলেন না বিসিবি সভাপতি। তবে বিতর্ক এড়িয়ে চলতে সাকিবের সঙ্গে কথা বলবেন বলে জানালেন নাজমুল হাসান, ‘এটা আমি প্রথম শুনলাম (শিশির যে পোস্ট দিয়েছেন)। আমি ফেসবুক ব্যবহার করি না। আমার অ্যাকাউন্টও নেই। তবে শুনেছি আমার নামে দু-একটা অ্যাকাউন্ট আছে! আপনাদের কাছে শুনলাম। ও (সাকিব) যেহেতু দেশেই আছে, ওকে বলব এ ধরনের কর্মকাণ্ড থেকে যেন বিরত থাকে।’

মন্তব্য: