luis suarez, bd sports, bd sports news, barcelona, real madrid,

হ্যাটট্রিকম্যান সুয়ারেজ। ছবি: রয়টার্স


ইনজুরির কারণে বার্সায় নেই লিওনেল মেসি আর ক্রিস্টিয়ানো রোনালদো তো রিয়াল ছেড়ে চলেই গেছেন জুভেন্টাসে। গত ১১ বছরে যা দেখেনি এল ক্লাসিকো এইবার তাই ঘটেছে অর্থাৎ মেসি রোনালদোহীন এল ক্লাসিকো। আর তাইতো কেমন যেন গা ছাড়া একটা ভাব ছিল ফুটবল লাভার মানুষগুলোর মাঝে। কিন্তু সুয়ারেজের ঝড় যেন সবকিছু লন্ড ভন্ড করে দিয়ে গেলো।

কাম্প নউয়ে রোববার স্থানীয় সময় বিকেলে শুরু হওয়া ম্যাচটি সুয়ারেজের হ্যাটট্রিকে ৫-১ গোলে রিয়াল মাদ্রিদকে হারিয়েছে এরনেস্তো ভালভেরদের দল। বার্সেলোনার হয়ে অন্য গোল দুটি করেছেন ফিলিপে কৌতিনিয়ো ও আর্তুরো ভিদালের।

বার্সেলোনার পক্ষে প্রথম গোলটি আসে কৌতিনিয়োর পা থেকে। জোর্দি আলবার পাস থেকে লক্ষ্যভেদ করেন ব্রাজিলিয়ান এই মিডফিল্ডার। ৩০ তম মিনিটে পেনাল্টি গোলে ব্যবধান দ্বিগুণ করেন সুয়ারেজ। রাফায়েল ভারানের ট্যাকলে ডি-বক্সের ভেতর সুয়ারেজ পড়ে গেলে রেফারি ভিএআর প্রযুক্তির সাহায্য নিয়ে পেনাল্টির সিদ্ধান্ত দেন। প্রথমার্ধে আর কোনো গোল হয়নি।

দ্বিতীয়ার্ধের শুরুতেই ৫০ তম মিনিটে গোল ব্যাবধান কমিয়ে ২-১ এ আনেন মার্সেলো। ইস্কোর ক্রস ভুলক্রমে বার্সেলোনার প্লেয়ারের পায়ে লেগে সৌভাগ্যক্রমে মার্সেলোর কাছে চলে আসে। সুযোগ কাজে লাগাতে দেরি করেননি তিনি। পিকেকে ফাঁকি দিয়ে ডান পায়ের শটে বল লক্ষ্যে পাঠান ব্রাজিলিয়ান এই মিডফিল্ডার।

৭৫ তম মিনিটে রবার্তোর ক্রসে প্রায় ১৬ গজ দূর থেকে অসাধারণ এক হেডে নিজের দ্বিতীয় গোল করেন সুয়ারেজ। আবার ৮৩ তম মিনিটে রামোসের ভুলে রবার্তোর বল পেয়ে গোল করে হ্যাটট্রিক পূরণ করেন সুয়ারেজ।

রিয়ালের কফিনে শেষ পেরেক ঠোকেন চিলির মিডফিল্ডার ভিদাল। ৮৪ তম মিনিটে বদলি হিসেবে মাঠে নেমে মাত্র ৩ মিনিটের মাথায় দোম্বেলের ক্রসে দারুন এক হেডে গোল করেন তিনি।

এই বছরটা রিয়াল মাদ্রিদের খুব খারাপ যাচ্ছে। ক্রিস্টিয়ানো রোনালদোহীন রিয়াল শুরুর দিকে ভালো করলেও এখন অবস্থা খুব খারাপ। ১০ ম্যাচ খেলে ৪ জয় ৪ হার ও ২ ড্র নিয়ে রিয়াল মাদ্রিদ আছে পয়েন্ট তালিকার নবম স্থানে। গত ৫ ম্যাচে একটিও ম্যাচ জিততে পারেনি রিয়াল মাদ্রিদ টানা ৩ টি ম্যাচে হেরেছে আর ড্র করেছে ২ টিতে।

অন্য দিকে লিওনেল মেসি সম্প্রতি ইনজুরিতে পড়লেও ১০ ম্যাচ খেলে ৬ টিতে জিতেছে বার্সেলোনা। হেরেছে ১ টিতে আর ড্র করেছে ৩ ম্যাচ। পয়েন্ট তালিকায় ১ নম্বরে থাকা বার্সেলোনার পয়েন্ট ২১। আর সমান সংখ্যক ম্যাচ খেলে ২০ পয়েন্ট নিয়ে বার্সেলোনার ঘাঁড়ে গরম নিশ্বাস ফেলছে আলভেস।

মন্তব্য: